Uncategorized

রঙের ব্যবহার

গ্রফিক্সে রঙ খুবই গুরুত্বপূর্ণ। ফটোশপে RGB(Read Green Blue),CMYK(Cyan Magenta Yellow Key (Black) ),Grayscale ইত্যাদি রঙ ব্যবহার করে থাকি। ফটোশপে কালার প্লেটটি এরকম দেখায়। এই পেলেটের রঙের মানের পরিবর্তন করে আমরা বিভিন্ন রং তৈরি করতে পারি। এ বিষয়ের ইউটিউব থেকে নেয়া ভিডিওটি দেখি:

ফায়ার ইফেক্ট তৈরি

আগুনের ইফেক্ট তৈরির জন্য 3d studio maxএর noise এবং fire ইফেক্ট ব্যবহার করতে পারি। create পেনেলের Helper টেব থেকে Apperature সিলেক্ট করবো। বিস্তারিত ভিডিওতে দেখুন।

লিমিট কন্ট্রোল

লিমিট কন্ট্রলার ব্যবহার করে কোন অবজেক্টকে র্নিদিষ্ট অবস্থান পর্যন্ত কন্টোল করা যায়। অবজেক্টটি সিলেক্ট করে রাইট ক্লিককরে ড্রপডাউন মেনু হতে curve editor সিলেক্ট করি। x রোটেশন সিলেক্ট করে রাইট ক্লিক করে Assign Controller এর ফ্লোয়েট লিমিট নিলেক্ট করি এবং ভিডিওটি অনুসরন করি..

far ইফেক্ট

থ্রিডি ইস্টুডিও ম্যাক্সে এটি নতুন সংযোজন। চুল বা লোম তৈরি করতে এটি ব্যবহার করা যায়। প্রথমে একটি স্ফেয়ার তৈরি করি এবং এটিকে সিলক্টে করে মডিফায়ার এপ্লাই করি, hair and far সিলেক্ট করলে চুল তৈরি করা যায়। tools এর style থেকে আচরানোর মতো করে আরও সুন্দর করা যায়।এই চুলগুলোরও এনিমেশন করা সম্ভব। দেখুন তাহলে ভিডিওটি।

বল এনিমেশন

থ্রিডি স্টুডিও ম্যাক্সের প্রথমিক পর্যায়ের টিউটরিয়াল এটি। দেখতে পারবো- কিভাবে একটি বলকে এনিমেট করা যায়। বলটিকে একটি নির্দিষ্ট পাথে মুভ করানো যাবে। প্রথমে একটি বল একে তার Time configaration সেট করতে হবে। তাহলে দেখে নেই- ভিডিওটি

গ্রাফিক্স ফাইল ফরমেট

গ্রফিক্স ফাইল ফরমেট খুবই গুরুত্বপূর্ন বিষয়। ছবিটির কাজের ধরন অনুসারে বিভিন্ন ফরমেটে ফাইলটি সেভ করতে হতে পারে। প্রিন্ট করার জন্য যে ফরমেট ব্যবহার করা হবে তা কিন্তু ওয়েবে ব্যবহারের জন্য উপযুক্ত নয়। ওয়েবে যথাসম্ভব ছোট আকারের ফাইল ব্যবহার করতে হবে। নিচে বিভিন্ন ধরনের ফাইল ফরমেট আলোচনা করা হলো: psd(Photoshop document): ফটোশপের নিজস্ব ফাইল ফরমেট। bmp(Bitmap …

গ্রাফিক্স ফাইল ফরমেট Read More »

ক্রপ টুলের ব্যবহার

Crop টুলের মাধ্যমে খুব সহজেই ছবির অংশ বিশেষ কেটে ফেলা যায়। ধাপে ধাপে শিখে নেই – ১. ক্রপ টুলটিতে ক্লিক করি। ২.ছবির যেঅংশ রাখতে চাই তা সিলেক্ট ড্রাগ করি। ৩. Enter বাটন চাপুন। ভিডিওতে বিস্তারিত:

ফটোশপ ভিডিও টিউটরিয়াল পার্ট-২

# নতুন ফাইলতৈরি করা: File মেনু থেকে New এ ক্লিক করুন। নিচের মতো চিত্র আসবে # ফাইলের নাম দেয়া। # ইমেজের উচ্চতা ও প্রস্থ নির্ধারন করা। # রেজুলেশন নির্ধারন করা। # রঙ নির্ধারন করা। # ব্যগগ্রউন্ড এর রং নির্ধারন করা।

প্রপার্টিজ

ভিজুয়াল বেসিকে প্রপার্টিজ খুবই গুরুত্বপূর্ণ। প্রতিটি অবজেক্টের কিছু property থাকে, যেমন-name, caption,apearance, font ইত্যাদি। ভিডিওটিতে দেখবোproperties কিভাবে পরিবর্তন করা যায় এবং পরিবর্তন করলে অবজেক্টটি কিরকম অচরন করে। # ফর্মের properties পরিবর্তন করা। # কমান্ড বাটনের properties পরিবর্তন করা। # একটিভ এক্স কন্ট্রোলের properties পরিবর্তন করা।

ভিজুয়াল বেসিক ভিডিও টিউটরিয়াল-০১ (পরিচিতি)

ভিজুয়াল বেসিক হলো খুবই সহজ ও শক্তিশালী প্রগ্রামিংভাষা, খুব সহজ কোডিংএর মাধ্যমে ভিজুয়াল বেসিক দিয়ে ইউটিলিটি সফটওয়্যার তৈরি করা যায়। ভিজুয়াল বেসিক এর ইনটারফেস নিচের ছবির মতো। বামপাশে রয়েছে টুলবক্স যার মধ্যে বিভিন্ন অবজেক্ট রয়েছে-যেমন: picture box, label,frame, button,checkbox,option,listbox,filelist,directory list, drive List ইত্যাদি। যেকোন অবজেক্ট বা কন্ট্রলযুক্ত করলে ডানপাশের property বক্সে কন্টোলটির property তালিকা আসে। …

ভিজুয়াল বেসিক ভিডিও টিউটরিয়াল-০১ (পরিচিতি) Read More »

পিএইচপি,মাই এসকিউএল ও এপাচি সারভার ডাউনলোড ও সেটআপ করা

আজ আমরা কোন কোডিং বা প্রগ্রামিং করবো না। শুধুমাত্র পিএইচপি, মাই এসকিউএল, ও এপাচি সারভার ইনস্টল করা শিখবো। এপাচি হলো ওয়েব সারভার, এপাচি সম্পর্কে পরবর্তিতে আলোচনা করা হবে। একটি মাত্র ফাইল ডাউনলোড করে আমরা এই তিনটিই পেতে পারি। ডাউনলোডকরে নিন। দেখুন ১৬ মেগাবাইট হয়েছে কিনা। তারপর সেটআপ ফাইলটি থেকে ডাউনলোড করে নিন। একের ভিতরে পিএইচপি,মাই …

পিএইচপি,মাই এসকিউএল ও এপাচি সারভার ডাউনলোড ও সেটআপ করা Read More »